শিরোনাম
নব নির্বাচিত এমপি আলহাজ্ব হাবীব হাসানের কাছে ঢাকা ১৮ আসনের জনগনের প্রত্যাশা ই-পাসপোর্ট যুগে প্রবেশ ৩টি রকেট আঘাত হানলো বাগদাদের মার্কিন দূতাবাদের কাছে সিপিবি’র সমাবেশে বোমা হামলা মামলায় ১০ আসামির মৃত্যুদণ্ড চ্যারিটেবল ট্রাস্ট মামলা: খালেদার জামিন খারিজের পূর্ণাঙ্গ রায় প্রকাশ দুর্ঘটনায় গুরুতর আহত শাবানা আজমি: ‘কর্মফল’ হিসেবে দেখছেন বিজেপি সমর্থকরা সংসদ সদস্য আব্দুল মান্নানের মৃত্যুতে প্রধানমন্ত্রীর শোক বিপিএল-এ এবারের চ্যাম্পিয়ন রাজশাহী কেন্দ্রীয় সরকারের ডাকা জরুরি বৈঠকে যাবে না তৃণমূল কংগ্রেস নতুন কমিশন অনুযায়ী সাপ্তাহিক মজুরি পেতে শুরু করেছে পাটকল শ্রমিকরা

ভারতবর্ষের ‘বাবা-মা’দের সমালোচনায় যা বললেন তসলিমা

উত্তরা টাইমস
সম্পাদনাঃ ১৭ আগস্ট ২০১৫ - ০৩:১৪:৩৯ পিএম

অনলাইন, ডেস্কঃ এবার ভারতবর্ষের ‘বাবা-মা’দের সমালোচনায় ফেসবুকের নিজ পাতায় লিখলেন যুক্তরাষ্ট্রে অবস্থানরত বাংলাদেশ থেকে নির্বাসিত লেখিকা তসলিমা নাসরিন। ভগবানের কৃপা পেতে ব্যবহৃত মিডলম্যান বা মিডলওম্যানদের এই ‘বাবা- মা’ বলে বোঝাতে চেয়েছেন তিনি।

টাইমস বিডির পাঠকদের জন্য হুবুহু স্ট্যাটাসটি তুলে দরা হলো-

ভারতবর্ষ ছেয়ে যাচ্ছে বাবা আর মা’য়ে। নিজেকে কেন যে এতিম ভাবে মানুষ! বাবা আর মা না হলে এদের যেন চলে না। ভগবানের কৃপা পেতে হলে কেন একজন মিডলম্যান বা মিডলওম্যান দরকার বুঝিনা। ভগবান কি ডাইরেক্ট কনটাক্টে বিশ্বাসী নন?

সেদিন রাধে মা’র খবর দেখলাম। পণ না দিলে উনি নাকি বউদের অত্যাচার করতে বলেছেন। এখন ফ্যাসাদে পড়েছেন। অমৃতানন্দময়ী মাতার কবল থেকে আমেরিকার এক ভক্ত তো পালিয়ে গিয়ে ভেতরের আশ্রমের কাণ্ড কারখানা নিয়ে একটা বই লিখেছেন। ভেতর থেকে কেউ বেরিয়ে এসে খবর ফাঁস করলে তবে আমরা জানতে পারি ভেতরে কী ঘটে।

সত্য সাঁই বাবার বালক ধর্ষণের খবর বিবিসির ডকুমেন্টারি থেকে জানতে পেরেছি, যেখানে ভক্তদের অনেকে মুখ খুলেছে। বাবার অদক্ষ হাতের জাদুগুলোও ক্যামেরায় ধরা পড়েছে ভালো। আসারাম বাপু ধর্ষণের জন্য এখনও জেলে। জেলের বাইরে বেশির ভাগ বাবাই। এদের পায়ে ঢেলে দেওয়া হয় মণি মুক্তো হীরে জহরত আর কোটি কোটি টাকা।

অসৎ উপায়ে উপার্জিত টাকাই বাবাদের পায়ে বোধহয় সহজে ঢেলে দেওয়া যায়। বাবাদের পায়ের কাছে বড় বড় রাজনীতিবিদ, ক্রিকেট তারকা, সিনেমার তারকা, মায় দেশের প্রেসিডেন্ট পর্যন্ত পড়ে থাকেন। সাধারণ মানুষ যাদের বুদ্ধিসুদ্ধি কম, তারা এসব দেখে আরও বেশি ভক্ত হয়ে পড়ে বাবা-মায়ের।

যুগের পর যুগ এই বাবা মাগুলো ভগবানের কাছ থেকে কিছু সুযোগ সুবিধে মিলিয়ে দেওয়ার লোভ দেখিয়ে মানুষকে বোকা বানিয়ে চলেছে। কোথায় সরকার মানুষকে সতর্ক করবে, তা নয়তো ধর্ম ব্যবসা নির্বিঘ্নে চালিয়ে যাওয়ার পথ আরও সুগম করে দিচ্ছে।

ধর্ম ব্যবসায় টাকা পয়সা ইনভেস্ট করতে হয় না, শুধু মানুষকে কী করে কায়দা করে মিথ্যে বলতে হয়, তা শিখতে হয়, কী করে মানুষের সঙ্গে প্রতারণা করতে হয়, তা জানতে হয়। ওই ব্যবসায় মার খাওয়ার আশংকা প্রায় নেই বললেই চলে। বিলিওনিয়ার না হলেও অন্তত মিলিওনিয়ার হওয়া তো যায়।

এ বিভাগের জনপ্রিয় খবর

সর্বশেষ
জনপ্রিয় খবর

Uttara Times

Like us on Facebook!
Sign up for our Newsletter

Enter your email and stay on top of things,

Subscribe!