শিরোনাম
নব নির্বাচিত এমপি আলহাজ্ব হাবীব হাসানের কাছে ঢাকা ১৮ আসনের জনগনের প্রত্যাশা ই-পাসপোর্ট যুগে প্রবেশ ৩টি রকেট আঘাত হানলো বাগদাদের মার্কিন দূতাবাদের কাছে সিপিবি’র সমাবেশে বোমা হামলা মামলায় ১০ আসামির মৃত্যুদণ্ড চ্যারিটেবল ট্রাস্ট মামলা: খালেদার জামিন খারিজের পূর্ণাঙ্গ রায় প্রকাশ দুর্ঘটনায় গুরুতর আহত শাবানা আজমি: ‘কর্মফল’ হিসেবে দেখছেন বিজেপি সমর্থকরা সংসদ সদস্য আব্দুল মান্নানের মৃত্যুতে প্রধানমন্ত্রীর শোক বিপিএল-এ এবারের চ্যাম্পিয়ন রাজশাহী কেন্দ্রীয় সরকারের ডাকা জরুরি বৈঠকে যাবে না তৃণমূল কংগ্রেস নতুন কমিশন অনুযায়ী সাপ্তাহিক মজুরি পেতে শুরু করেছে পাটকল শ্রমিকরা

আজও উত্তাল সাভার-গাজীপুর

উত্তরা টাইমস
সম্পাদনাঃ ০৯ জানুয়ারী ২০১৯ - ০১:২৮:১৭ পিএম

বেতন বৃদ্ধির দাবিতে আজও সড়কে নেমেছেন সাভার ও গাজীপুরের বিভিন্ন পোশাক কারখানার শ্রমিকরা। কিছুক্ষণের জন্য তারা ঢাকা-ময়মনসিংহ ও ঢাকা-আরিচা মহাসড়ক অবরোধ করলেও পুলিশ তাদের সড়ক থেকে সরিয়ে দিয়েছে। তবে পরিস্থিতি আজও থমথমে রয়েছে।

গাজীপুরে আজও বিভিন্ন স্থানে বেশ কয়েকটি পোশাক কারখানার শ্রমিকরা কর্মবিরতি, বিক্ষোভ ও ভাঙচুর করেছেন। বুধবার সকাল ৯টার দিকে মহানগরীর বোর্ডবাজার, সাইনবোর্ড, ভোগড়া, ইসলামপুর এলাকায় বিভিন্ন স্থানে শ্রমিকরা বিক্ষোভ নিয়ে মহাসড়কে নামেন। এ সময় ঢাকা-ময়মনসিংহ মহাসড়কে যানবাহন চলাচল বন্ধ হয়ে যায়।

গাছা থানার ওসি মো. ইসমাইল হোসেন জানান, সরকার ঘোষিত মজুরি কাঠামো অনুযায়ী বেতন ভাতা বৃদ্ধির দাবিতে গাজীপুরের বিভিন্ন কারখানার শ্রমিকরা কর্মবিরতি ও বিক্ষোভ করেছে। শ্রমিকরা যেন মহাসড়কে নেমে কোনো ভাঙচুর বা অরাজকতা করতে না পারে সেজন্য পুলিশ সতর্ক রয়েছে। সকাল থেকে মহাসড়কে যানবাহনের সংখ্যা অন্য দিনের তুলনায় অনেক কম।

এ ব্যাপারে নাম প্রকাশে অনিচ্ছুক স্থানীয় কয়েকটি কারখানার কর্মকর্তারা জানান, কারখানা কর্তৃপক্ষ সরকার নির্ধারিত বেতন ভাতা শ্রমিকদের দিচ্ছে। কিন্তু বহিরাগত কিছু শ্রমিক বিভিন্ন কারখানার শ্রমিকদের জোরপূর্বক কারখানা থেকে বের করে সড়কে গণ্ডগোল করছে। ভুল ধারণা থেকে শ্রমিকরা অযৌক্তিকভাবে এ আন্দোলন করছে। ইতোমধ্যে শ্রমিক অসন্তোষের মুখে কয়েকটি পোশাক কারখানা অনির্দিষ্টকালের জন্য বন্ধ ঘোষণা করা হয়েছে। পরিস্থিতি স্বাভাবিক হলে এসব কারখানা খুলে দেয়া হবে।

এদিকে শ্রমিক বিক্ষোভের মুখে সাভার-আশুলিয়া শিল্পাঞ্চলে থমথমে পরিস্থিতি বিরাজ করছে। বেশ কিছু কারখানার শ্রমিকরা কাজ না করে সড়কে নেমে বিক্ষোভ করেছে। শ্রমিক বিক্ষোভের পাল্টা ব্যবস্থা হিসেবে শ্রম আইন অনুযায়ী কয়েকটি কারখানা অনির্দিষ্টকালের জন্য বন্ধ ঘোষণা করেছে মালিক পক্ষ। এছাড়া বিক্ষোভে নামা শ্রমিকদের কাজে ফেরাতে কাজ শুরু করেছে পুলিশ।

বুধবার সকালে সাভার শিল্পাঞ্চলের উলাইল এলাকায় স্ট্যান্ডার্ড গ্রুপের শ্রমিকরা কারখানায় এসে হামলা চালায়। কারখানার বাইরে থেকে ইটপাটকেল নিক্ষেপ করতে থাকে শ্রমিকরা। এক পর্যায়ে কারখানার পাশের একটি সড়কে টায়ার জ্বালিয়ে অবস্থান নেয়। খবর পেয়ে পুলিশের একটি দল ঘটনাস্থলে গিয়ে শ্রমিকদের সড়ক থেকে সরিয়ে দেয়।

jagonews

এছাড়া সাভার বাজার বাসস্ট্যান্ডে ঢাকা-আরিচা মহাসড়ক অবরোধ করে রাখে শ্রমিকরা। এতে ওই সড়কটিতেও যানচলাচল বন্ধ থাকে কিছু সময়।

আশুলিয়ার কাঠগড়া এলাকায় টেক্সটাউন গার্মেন্টসসহ আশপাশের পাঁচটি পোশাক কারখানার শ্রমিকরা কাজে যোগ না দিয়ে বিক্ষোভ করেন। বিশমাইল-জিরাবো সড়ক অবরোধ করে রাখেন ওই শ্রমিকরা। পরে তাদের বুঝিয়ে সড়ক থেকে সরিয়ে দেয় পুলিশ।

বিক্ষোভে নামার পর আজকের জন্য জিরাবো এলাকার ওই পাঁচটি কারখানায় সাধারণ ছুটি ঘোষণা করেছে মালিকপক্ষ।

এদিকে শ্রমিক বিক্ষোভের পাল্টা ব্যবস্থা হিসেবে স্ট্যান্ডার্ড গ্রুপের তিনটি ও মেট্রো নিটিং অ্যান্ড ডাইং লিমিটেড নামের আরও একটি কারখানা অনির্দিষ্টকালের জন্য বন্ধ ঘোষণা করেছে মালিকপক্ষ। বুধবার সকালে কারখানার সামনে গিয়ে বন্ধের নোটিশ দেখতে পাওয়া যায়। ওই কারখানাগুলোর সামনে অতিরিক্ত পুলিশ সদস্য এবং জলকামান ও সাজোয়া যানের টহলও দেখা গেছে।

এরআগে গতকাল মঙ্গলবার পুলিশ-শ্রমিক সংঘর্ষে গুলিবিদ্ধ হয়ে সুমন মিয়া নামে আনলিমা টেক্সটাইলের এক শ্রমিক মারা যান।

সর্বশেষ
জনপ্রিয় খবর

Uttara Times

Like us on Facebook!
Sign up for our Newsletter

Enter your email and stay on top of things,

Subscribe!